২১শে মে, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ , ৭ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

প্রচ্ছদ লাইফস্টাইল আওয়ামীলীগের সুনাম রক্ষার্থে মেয়র আনিছের বিকল্প নেই : উপজেলা আওয়ামীলীগের গুরুত্বপূর্ণ পদে দেখতে চায় উপজেলাবাসী
৯, নভেম্বর, ২০১৯, ৩:০১ অপরাহ্ণ -

শরৎ সেলিম, বিশেষ প্রতিনিধি : বাংলাদেশে স্বাধীনতার মহান স্থপতি জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের স্বপ্ন পূরণে স্বাধীনতা পরবর্তীতে বহু নেতৃত্বের মধ্য দিয়ে ক্লিন ইমেজ তৈরী করেছেন অনেক নেতৃবৃন্দ। তারই ধারবাহিকতায় আওয়ামীলীগের সুসময় ও দু:সময়ে সেই সব নেতৃবৃন্দ ও তাদের অনুসারীরা ক্লিন ইমেজের মধ্য দিয়েই বর্তমান সময় পর্যন্ত আওয়ামীলীগের পরিচ্ছন্ন কর্মকান্ডে সফলতা অর্জন করেছে। বাংলাদেশের মানুষের ভাগ্য উন্নয়নে বাংলাদেশের সফল রাষ্ট্রনায়ক জননেত্রী শেখ হাসিনার সহযোদ্ধা হিসেবে ত্রিশাল উপজেলা আওয়ামীলীগের প্রতিষ্ঠাতা সাধারণ সম্পাদক বীর মুক্তিযোদ্ধা মরহুম আবুল হোসেন চেয়ারম্যান সাহেবের সুযোগ্য সন্তান আলহাজ্ব এবিএম আনিছুজ্জামান আনিছ বিগত সময়ে ছাত্রলীগ থেকে  শুরু করে উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক হিসেবে সফলতার সাথে  দায়িত্ব পালন করেছেন। তারই সফলতা স্বরূপ পর পর দুই দুই বার ত্রিশাল পৌরসভার মেয়র হিসেবে নির্বাচিত হয়েছে।

বর্তমানে জনগণের ভালোবাসা ও আস্থা নিয়ে তিনি জনগণের ভাগ্য উন্নয়নে কাজ করে যাচ্ছে। এলাকার রাস্তাঘাট, ড্রেন, কালভার্ট সহ পরিচ্ছন্ন ও মাদকমুক্ত একটি ত্রিশাল উপহার দেয়ার চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছেন। সততা ও নিষ্ঠাকে পুজি করে বীরদর্পে। তিনি বিগত সময়ে এলাকার খেলাধূলা সহ যুবকদের উন্নয়নের স্বপ্ন পূরণের সফলতার সাথে কাজ করেছেন। তিনি এমনি একজন নেতা জননেত্রী শেখ হাসিনার বিশ্বস্ত নেতৃত্বের পরিচয় প্রদান করে বিগত সময়ে ত্রিশালবাসীর সমর্থন পেয়েও এমপি নির্বাচনে জননেত্রী শেখ হাসিনার সিদ্ধান্তকে শ্রদ্ধা জানিয়েছেন। তিনি জাতীয় সংসদ নির্বাচনের সময় বলেছিলেন আমার নেত্রী বঙ্গবন্ধু কন্যা জননেত্রী শেখ হাসিনার সিদ্ধান্তই শিরোধার্য।তিনি আমাকে যেভাবে দেখতে চায় আমি সেভাবেই থাকতে রাজি। নেত্রীর সিদ্ধান্তের বাইরে যাওয়া যাবেনা।

ত্রিশালবাসীর এই হীরকদ্যূতি আলহাজ্ব এবিএম আনিছুজ্জামান ত্রিশালবাসীর সামাজিক উন্নয়ন সহ নানাদিক উন্নয়নে তার গতিকে স্থির করে রাখেনি, এগিয়ে নিয়েছে সর্বস্তরে। ত্রিশাল উপজেলাবাসী তাদের এই মহান মানুষটিকে আসছে ত্রিশাল উপজেলা আওয়ামীলীগের সম্মেলনে একটি গুরুত্বপূর্ণ পদে অধিষ্ঠিত করতে চায়। তিনি যেন এই পদে থেকে বঙ্গবন্ধুর স্বপ্ন পূরণ করতে পারেন। দুখী, বঞ্চিত ও মেহনতি মানুষের সর্বদা পাশে থাকা এই মানুষটির নেতৃত্বে ত্রিশালবাসীর ভাগ্য উন্নয়ন সম্ভব। বাকীটা পরবর্তী সংখ্যায়।