২৫শে এপ্রিল, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ , ১২ই বৈশাখ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

প্রচ্ছদ অর্থনীতি এবার ৪৫ টাকায় পেঁয়াজ মিলছে রাজধানীতে
১৭, নভেম্বর, ২০১৯, ১২:১০ অপরাহ্ণ -

সেলিম মিয়াঃ

এবার ৪৫ টাকায় পেঁয়াজ মিলছে রাজধানীতে
৪৫ টাকায় পেঁয়াজ- বেড়েই চলছে নিত্যপ্রয়োজনীয় পণ্য পেঁয়াজের দাম। খুচরা বাজারে এখন পেঁয়াজের প্রতিকেজি ২২০ থেকে ২৫০ টাকা দরে বিক্রি হচ্ছে। এতে ক্ষুব্ধ প্রতিক্রিয়া জানিয়েছেন ক্রেতাসহ সাধারণ মানুষ।

এদিকে, নিন্ম আয়ের মানুষের কথা মাথায় রেখে রাজধানীতে ৪৫ টাকা দরে পেঁয়াজ বিক্রি করছে ট্রেডিং কর্পোরেশন অব বাংলাদেশ (টিসিবি)। ঘণ্টার পর ঘণ্টা অপেক্ষা করে দীর্ঘ লাইনে দাঁড়িয়ে পেঁয়াজ কিনছেন সাধারণ মানুষ।

খোঁজ নিয়ে জানা যায় জাতীয় প্রেস ক্লাবের সামনে ট্রাকে করে ৪৫ টাকা দরে পেঁয়াজ বিক্রি করছে টিসিবি। এসময় দেখা যায়, পেঁয়াজ কিনতে মানুষের লম্বা সারি। প্রায় এক ঘণ্টা লাইনে দাঁড়ালে মিলছে পেঁয়াজ।

ঘণ্টাখানেক লাইনে দাঁড়িয়ে পেঁয়াজ কিনেছেন জসিম উদ্দীন। তিনি বলেন, ‘দীর্ঘক্ষণ লাইনে দাঁড়িয়ে থাকা ছাড়া আর কোনো সমস্যা হয়নি। প্রতি কেজি পেঁয়াজ ৪৫ টাকা দরে কেনা যাচ্ছে। কিন্তু দুই কেজি পেঁয়াজ নিলে ১০০ টাকা নিচ্ছেন তারা। তবে দুই কেজির চেয়ে কিছু বেশি পেঁয়াজ দিয়ে দিচ্ছেন।’

টিসিবির মুখপাত্র মো. হুমায়ুন কবির বলেন, পেঁয়াজের দাম নিয়ন্ত্রণে রাখতে রাজধানীর বিভিন্ন স্পটে ৩৫টি ট্রাকে ন্যায্যমূল্যে পেঁয়াজ বিক্রি করা হচ্ছে। একজন ডিলার কেজিপ্রতি ৪৫ টাকা দরে প্রতিদিন এক হাজার কেজি (এক টন) পেঁয়াজ বিক্রি করছেন।

গত মাসে পেঁয়াজ রফতানি বন্ধের ঘোষণা দেয় প্রতিবেশী দেশ ভারত। এর পরপরই হু হু করে বাড়তে থাকে পেঁয়াজের দাম। আমদানি করা পেঁয়াজ আজ বিক্রি হচ্ছে ১১০ থেকে ১৩০ টাকা কেজি। মিয়ানমারের পেঁয়াজ কেজি ৯০-১০০ টাকা, দেশি পেঁয়াজ ১৪০-১৫০ টাকা।